channel 24

সর্বশেষ

  • চট্টগ্রামে চলছে চাকরি মেলা

  • নরসিংদীর বাঁশগাড়িতে আ.লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষে এক শিক্ষার্থীর মৃত্যু

  • নির্বাচনি ইশতেহারে স্বাস্থ্য খাতকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেয়ার আহবান

  • রাইড শেয়ারিং অ্যাপ উবারের ১০৭ কোটি ডলার লোকসান

  • মূলার বাম্পার ফলনের পরও লোকসানে লালমনিরহাটের চাষীরা

  • ইতিহাসের সাক্ষী হবার অপেক্ষায় নোয়াখালী শহীদ ভুলু স্টেডিয়াম

  • শীতকালীন সবজিতে ছেয়ে গেছে কাঁচাবাজার

  • নিপুণ রায়সহ ৭ জন পাঁচ দিনের রিমান্ডে

  • মিডিয়া কাপ ক্রিকেটে বাংলা ট্রিবিউন চ্যাম্পিয়ন

  • বকুলতলায় নাচে-গানে উদযাপিত হচ্ছে নবান্ন উৎসব

  • বর্ণময় জীবনের অধিকারী ছিলেন শিল্পী বারী সিদ্দিকী

  • সংখ্যালঘু নির্যাতনকারীদের মনোনয়ন না দেয়ার দাবি হিন্দু জোটের

  • সানরাইজার্সের হয়েই আইপিএল খেলবেন সাকিব

  • বরিশালের সঙ্গে ঝালকাঠিসহ ছয়টি রুটে বাস চলাচল বন্ধ

  • সৃষ্টির মাঝেও কাটছে না শূন্যতার রেশ

বিক্রি হয়ে যাচ্ছে রাজ কাপুরের স্বপ্নের আর কে স্টুডিও

বিক্রি হয়ে যাচ্ছে রাজ কাপুরের স্বপ্নের আর কে স্টুডিও

বিক্রি হয়ে যাচ্ছে রাজ কাপুরের স্বপ্নের আর কে স্টুডিও। কাপুর পরিবারের সকলের সম্মতিতেই বিক্রি হয়ে যাচ্ছে চার দশকের পুরনো এই স্টুডিও। রাজ কাপুরের ছেলে তথা জনপ্রিয় অভিনেতা ঋষিকাপুর এই খবরের সত্যতা শিকার করেছন ৷
অভিনয় জগতের সঙ্গে ওতপ্রোত ভাবে জড়িয়ে থাকা রাজ কাপুর ১৯৪৮ সালে  নির্মাণ করেন ‘আর কে স্টুডিও’। অনেক সুপার হিট ছবির শুটিং হয়েছে এই স্টুডিওতে। তৎকালীন বোম্বের চেম্বুর অঞ্চলের এই স্টুডিওর প্রথম ছবি ছিল ‘আগ’ (১৯৪৮)। ‘আওয়ারা’ (১৯৫১), ‘শ্রী ৪২০’ (১৯৫৫), ‘সঙ্গম’ (১৯৬৪), ‘মেরা নাম জোকার’ (১৯৭০), ‘ববি’ (১৯৭৩), ‘রাম তেরি গঙ্গা ময়লি’ (১৯৮৫), ‘হিনা’ (১৯৯১) ইত্যাদি আরো বেশ কিছু ছবি।
গত বছর রিয়্যালিটি শো ‘সুপার ডান্সার’ এর শুটিংয়ের সময়ে আগুন লাগে আর কে স্টুডিওতে। স্টুডিওর বেশ কিছু অমূল্য সম্পদ পুড়ে ছাই হয়ে যায়। পুড়ে যায় ছাই হয় যে অভিনেত্রীরা অভিনয় করেছিলেন তাঁদের পোশাক। নার্গিস, বৈজন্তীমালা থেকে শুরু করে ঐশ্বর্যা রাইদের সেই সব পোশাকের সঙ্গে সঙ্গে তাঁদের গয়নাগাটিও পুড়ে ছাই হয়ে যায়। নষ্ট হয়ে যায় ‘মেরা নাম জোকার’-এর সেই মুখোশ, ‘জিস দেশ মে গঙ্গা বহতি হ্যয়’-এর সেই বন্দুক। ‘আওয়ারা’, ‘সঙ্গম’, ‘ববি’ এই সব ছবিতে ব্যবহৃত সেই বিরাট পিয়ানো প্রায় শেষ হয়ে যায়।
ঋষি কাপুর ও তাঁর পরিবার নিশ্চিত করেছেন এই ঐতিহ্যবাহী স্টুডিওটি পুনরায় আগের রূপে ফিরিয়ে নিতে গেলে প্রচুর অর্থ ব্যায় করতে হবে ৷ তাও এই বিষয়ে সন্দেহ আছে ধ্বংস্তুপ থেকে উদ্ধার করে আগের মত অবস্থায় ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়া কতখানি সম্ভব সেই বিষয়ে। তবে কবে বিক্রি হচ্ছে আর কে স্টুডিয়ো সে বিষয়টা খোলসা করেননি ঋষি কপূর। হতে পারে দু’দিন, দু’মাস। হয়তো বা দু’বছরও লেগে যেতে পারে এই স্টুডিও বিক্রি হতে, জানিয়েছেন ঋষি।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

বিনোদন খবর