channel 24

সর্বশেষ

  • 'আদর্শিক ও রাজনৈতিকভাবে জঙ্গিবাদকে মোকাবিলা করতে হবে'

  • শূন্য থেকে শুরু; এখন ২শ' বিঘা জমিতে গড়া বাগানের মালিক আলফাজুল

  • কক্সাবাজারে দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে শিক্ষার্থী নিহত

  • কক্সবাজারে জেলেদের সহায়তার দাবিতে মানববন্ধন

  • ট্রেনের আগাম টিকিট বিক্রির শেষদিনেও পিছু ছাড়েনি ভোগান্তি

  • বান্দরবানে বন্য হাতির আক্রমণে নিহত ১

  • ফটোশুট ও গেমসে মাতলো সাকিব-তামিম-মুশফিকরা

  • এয়ারক্রাফ্ট ছিনতাই চেষ্টা নস্যাতে: ক্রুদের সম্মাননা জানালো বিমান

  • দীর্ঘ প্রতিক্ষার পর হালদায় ডিম ছেড়েছে কার্প জাতীয় মাছ

  • খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য নিয়ে অপরাজনীতি না করার আহ্বান তথ্যমন্ত্রীর

  • নুসরাত হত্যা: ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলার অভিযোগ প্রমাণিত

  • টানাপোড়নের মধ্যেই হুয়াওয়ের নতুন স্মার্ট ডিভাইস উন্মোচন

  • ক্রেতাদের পদচারণায় মুখর চাঁদপুর, লক্ষ্মীপুর ও বি. বাড়িয়ার বিপণি বিতান

  • কেরালায় হামলার উদ্দেশ্যে নৌপথে শ্রীলঙ্কা ছেড়েছে ১৫ আইএস জঙ্গি

  • ঘন্টায় ৩৬০ কিলোমিটার গতির বুলেট ট্রেনের পরীক্ষা চালালো জাপান

ইতিহাস সৃষ্টি করতে চায় ইসি!

ইতিহাস সৃষ্টি করতে চায় ইসি!

রাজনীতির মাঠে গত আট বছরেরর আলোচনায় ছিলো তত্ত্বাবধায়ক সরকার বনাম দলীয় সরকারের বিতর্ক। বিএনপিসহ বেশ কয়েকটি রাজনৈতিক দল দলীয় সরকারের অধীনে দশম সংসদ নির্বাচনে অংশ না নেয়ায় অনেকটা এক তরফা হয় সেই ভোট।

এবার ক্ষমতায় আওয়ামী লীগ। নির্বাচন কমিশন (ইসি) ভোটের তফসিল ঘোষণার পর ভোটে যাবার ঘোষণা প্রায় সবগুলো রাজনৈতিক দলের। 
এবার তাই অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের প্রত্যাশা সবগুলো দলের। 

প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নূরুল হুদা তাই দাবি করেছেন, এবার ইতিহাস তৈরি হবে। কেননা সবার অংশগ্রহণ না থাকায় ২০১৪ সালের নির্বাচন অংশগ্রহণমূলক হয়নি। আলোচনা ছিলো সরকার ব্যবস্থা নিয়েও।

মঙ্গলবার রিটার্নিং কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে দেয়া বক্তব্য সিইসি দাবি করেছেন, এবারের নির্বাচনের প্রেক্ষাপট ভিন্ন। সব দলের উপস্থিতিতে এবার অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন চায় কমিশন। দলীয় সরকারের অধীনে সেই কাজটি করতে পারলে ইতিহাস হবে বলেও মনে করেন তিনি। 

রিটার্নিং কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে সিইসি বলেন, ব্যক্তিগত ব্যর্থতার দায়ে যেন কমিশন প্রশ্নবিদ্ধ না হয় সে দায়িত্ব জেলা প্রশাসকদেরই।

কমিশনার মাহবুব তালুকদার বলেছেন, ভোট জনগণের আমানত। বিতর্কিত নির্বাচন করে কোনো দেশের গণতন্ত্রের ভিত্তি কখনো মজবুত হবে না। 

বলেন, কমিশন চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় প্রস্তুত রয়েছে। তাই কর্মকর্তাদের নির্বিঘ্নে দায়িত্ব পালন করতে হবে কর্মকর্তাদের। 
এই কমিশনার বলেন, ভোট হলো ভোটারদের পবিত্র আমানত। তাদের ভোটাধিকার ফিরিয়ে দিতে হবে। এই নিশ্চয়তা না দিলে জনগণের আস্থা পাওয়া যাবে না। 

ঠিক এমন অবস্থায় নির্বাচন কমিশনের জিরো টলারেন্স নীতির কথা স্পষ্ট করেছেন তিনি। 

হুঁশিয়ার করে কর্মকর্তাদের বলেন, দায়িত্ব পালনে শিথিলতা বরদাশত করবে না ইসি। গাফিলতির অভিযোগ পেলে রিটার্নিং কর্মকর্তাসহ দায়িত্বপ্রাপ্তদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়ারও ঘোষণা দেন।
এদিন, কমিশনার রফিকুল ইসলাম ও কবিতা খানম সুষ্ঠু ভোটে সহযোগিতা চান কর্মকর্তাদের।

বুধবার সহাকারী রিটার্নিং কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে ব্রিফিং করবে কমিশন।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

একাদশ জাতীয় নির্বাচন খবর