channel 24

সর্বশেষ

  • ঢাকা ১০ আসনে উপ-নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন জমা

  • প্রাইভেটকারে যাত্রীবহনের নামে অপহরণ ও মুক্তিপণ আদায়, গ্রেপ্তার ২

  • নাটোরে দুদক কর্মকর্তা ও সাংবাদিক পরিচয়ে চাঁদাবাজি, গ্রেপ্তার ৩

  • পাঠকের বৈঠকখানায় সাদাত, ইমরান ও কিঙ্কর

  • মোটরসাইকেল চুরি করে পালালেন পুলিশ, সিসি ক্যামেরায় ধরা

  • খালেদা জিয়ার জামিন পুরোটাই আদালতের বিষয়: কাদের

  • বগুড়ায় বাস উল্টে খাদে পড়ে ২ জন নিহত, আহত ৫

  • মুজিববর্ষের আয়োজনে অংশ নিতে আসছেন নরেন্দ্র মোদি: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

  • সিঙ্গাপুরে করোনায় আক্রান্ত এক বাংলাদেশির অবস্থার অবনতি: আইইডিসিআর

  • রাষ্ট্রায়ত্ত্ব পাঁচটি ব্যাংকের পুঁজিবাজারে আসা নিয়ে শঙ্কায় বিশ্লেষকরা

  • গাজীপুরে পুলিশের বিরুদ্ধে এক নারীকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ

  • বেসরকারি উদ্যোগে ৪০টি জিপি সেন্টার চালু, যার নাম ডাক্তারখানা

  • অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্নের মধ্যাকাশে দুই প্লেনের সংঘর্ষ, নিহত ৪

  • রাজধানীর বাড্ডায় ৩৬ কেজি গাঁজাসহ আটক ২

  • যশোরে জমি উদ্ধারের নামে শিক্ষার্থীদের দিয়ে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ভাংচুর

ফণীর প্রভাবে গৃহহীন মানুষ; ত্রাণ নয়, পুনর্বাসনের দাবি

ফণীর প্রভাবে গৃহহীন মানুষ; ত্রাণ নয়, পুনর্বাসনের দাবি

নোয়াখালীতে ঘূর্ণিঝড় ফণীর প্রভাবে গৃহহীন অনেক মানুষ এখনও খোলা আকাশের নিচে। দিনে কোনোমতে থাকলেও রাত কাটে ঝড় বৃষ্টি আতঙ্কে। ভুক্তভোগীরা বলছেন, এই কদিনে সরকারি বেসরকারিভাবে যে সহায়তা দেয়া হয়েছে, তা ফুরিয়ে গেছে। তবে ত্রাণ নয় তাদের দাবি, পুনর্বাসন। স্থানীয় প্রশাসন বলছে, রোজার ঈদের আগেই এই মানুষগুলোর পুনর্বাসনে সরকার আন্তরিক।

সরকারি হিসেবে ঘূর্ণিঝড় ফণীর প্রভাবে নোয়াখালী সদর, সুবর্ণচর ও কোম্পানিগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ৬৮৯টি বাড়ি সম্পূর্ণ এবং ৩৩৩টি বাড়ি আংশিক বিধ্বস্ত হয়। এরমধ্যে সদর উপজেলার ধর্মপুর ইউনিয়নের পূর্ব শূল্লকিয়া ও সুবর্ণচর উপজেলার ওয়াপদা ইউনিয়নের চর আমিনুল হক গ্রামে দুই শতাধিক ঘর সম্পূর্ণ বিধ্বস্ত হয়। ভেঙে গেছে প্রচুর গাছপালা।

আকস্মিক ঝড়ে শুধু বাড়িঘর নয়, উড়িয়ে নিয়ে গেছে খাদ্যশস্য, মুরগি ও গরুর খামারও। সব হারিয়ে দিশেহারা অনেক পরিবার। চাহিদার তুলনায় তারা সরকারি বেসরকারি যে সহায়তা পেয়েছে তাও ফুরিয়ে গেছে। এখনও খোলা আকাশের নিচে সামিয়ানা টানিয়ে থাকছে পরিবারগুলো। ৎ

নোয়াখালীর জেলা প্রশাসক তন্ময় দাসের দাবি, শুরু থেকেই সরকারিভাবে পর্যাপ্ত ত্রাণ দেয়া হয়েছে। এরইমধ্যে পুনর্বাসনেরও উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। রোজার ঈদের আগেই ক্ষতিগ্রস্তদের পুনর্বাসনের আশ্বাস তার।

ত্রাণ ও দুর্যোগ মন্ত্রণালয়ের হিসাবে, ঘূর্ণিঝড় ফণীর প্রভাবে দেশের বিভিন্ন খাতে ৫শ ৩৬ কোটি ৬১লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে। এরমধ্যে রয়েছে বাড়িঘর, বাঁধ, রাস্তা, ফসল, মাছ, বন ও পরিবেশগত ক্ষয়ক্ষতি।

সর্বশেষ সংবাদ

দেশ 24 খবর