channel 24

সর্বশেষ

  • তাজিয়া মিছিলের নিরাপত্তায় সর্বোচ্চ ব্যবস্থা: ডিএমপি কমিশনার

  • কোটা নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পাল্টাপাল্টি মিছিল

  • একুশ আগস্ট গ্রেনেড হামলার বিচার কাজ শেষ; রায় ১০ অক্টোবর

  • ইভিএম কিনতে ৪ হাজার কোটি টাকার প্রকল্প অনুমোদন একনেকে

  • বিএনপি নেতা আমীর খসরুর সম্পদ অনুসন্ধানে দুদকের অভিযান

  • ২০১৭-১৮ অর্থ বছরে জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৭.৮৬ শতাংশ: পরিকল্পনামন্ত্রী

পদ্মার গ্রাসে শরীয়তপুরের নড়িয়ার ১৮ হাজার স্থাপনা

পদ্মার গ্রাসে শরীয়তপুরের নড়িয়ার ১৮ হাজার স্থাপনা

পদ্মার ভাঙনের ভয়াবহতা এখন শরীতপুরের নড়িয়া উপজেলা জুড়ে। যে ভাঙন ঠেকানো যেতো স্থানীয় প্রশাসনের সামান্য উদ্যোগে। নড়িয়াবাসীর অভিযোগ, দফায় দফায় পিছিয়েছে বাঁধ নির্মাণ কাজ। যদিও পানি উন্নয়ন বোর্ড জানিয়েছে এই নভেম্বরেই বাঁধ নির্মাণ কাজ শুরু হবে।

নড়িয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভেঙ্গে পড়ার দৃশ্য যে কারো বুকে শেল হয়ে বিঁধবে! এই হাসপাতালের পাশেই মুলফৎগঞ্জ বাজার যার ঐতিহ্য দুই শতাব্দীর। পদ্মাতীরের এই বাজারেই ভিড়তো ব্রিটিশ আমলের বড় বড় জাহাজ। পদ্মার গ্রাসে সেই স্মৃতিও এখন বিলীন। আগে থেকেই ব্যবস্থা না নেয়ায় নদী গর্ভে হারিয়েছে অন্তত ১৮ হাজার স্থাপনা।    

এ এলাকা বাঁচাতে কয়েক বছর আগে থেকেই স্বোচ্চার ছিলেন স্থানীয়রা। তবে তাদের হাজারো কর্মসূচিও জাগাতে পারেনি প্রশাসনকে। এই আন্দোলনের একজন সংগঠক আইনজীবী আবুল কালাম। তার অভিযোগ পানি উন্নয়ন বোর্ডের গড়িমসিতে দফায় দফায় পিছিয়েছে বাঁধ নির্মাণ কাজ।

তবে পানি উন্নয়ন বোর্ডে দাবি, দ্রুততম সময়েই প্রকল্পের কাজ করা হচ্ছে। এই নভেম্বরেই শুরু হবে বাঁধ নির্মাণ কাজ।

এতো দিনেও প্রকল্পের কাজ শুরু না হওয়ায় স্থানীয় রাজনীতিবিদদেরও দুষছেন নড়িয়া পৌর মেয়র। স্থানীয় রাজনীতিবিদদের রেষারেষি আর প্রশাসনের ধীর গতিতে পদ্মা কেড়ে নিয়েছে ২৫টি। আর কতজন সর্বস্ব হারালে টনক নড়বে প্রকল্পের সাথে জড়িতদের এই প্রশ্ন নড়িয়াবাসীর। 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

দেশ 24 খবর