channel 24

সর্বশেষ

  • ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে করোনার হানা, কলম্বিয়ায় ৪১ ফুটবলার আক্রান্ত

  • দুই আসনের উপনির্বাচনে ক্ষমতাসীন দলের প্রার্থীরা জয়ী

  • এখনো জাতীয় দলে ফেরার স্বপ্ন আশরাফুলের

  • ৩ সপ্তাহ পর করোনা মুক্ত হলেন মাশরাফী

  • রিজেন্ট গ্রুপের এমডি মাসুদ পারভেজ গ্রেপ্তার

  • স্বাস্থ্যমন্ত্রীর তীব্র সমালোচনা করলেন মশিউর রহমান রাঙা

  • সাতক্ষীরায় কমিউনিটি ক্লিনিকের সিএইচসিপিদের মানববন্ধন

  • বন্যা পরিস্থিতি আরও ভয়াবহ হবে, ছড়াবে ২৩ জেলায়

  • বেরিয়ে আসছে সাবরিনার অপকর্মের নানা নজির

  • এরশাদের প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী পালিত

  • ভুয়া চিকিৎসক দম্পতির নৃশংসতা

  • বগুড়া-১ ও যশোর-৬ আসনের উপনির্বাচনে ভোটগ্রহণ শেষ, চলছে গণনা

  • অধিদপ্তরের ডিজির অনুরোধেই রিজেন্টের সাথে চুক্তি: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

  • বিদ্যুৎ উৎপাদনে চীনা প্রতিষ্ঠানের সাথে যৌথ কোম্পানি গঠনে চুক্তি

  • জামরুলের পুষ্টিগুণ

বাংলাদেশে বিদ্যুৎখাতে বিনিয়োগ করতে যাচ্ছে সৌদি আরব

বাংলাদেশে বিদ্যুৎখাতে বিনিয়োগ করতে যাচ্ছে সৌদি আরব

প্রথমবারের মতো বাংলাদেশের এলএনজি (লিকুইফাইড ন্যাচারাল গ্যাস) ভিত্তিক বিদ্যুৎখাতে বিনিয়োগ করতে যাচ্ছে সৌদি আরব। দেশটির রাষ্ট্রায়ত্ব প্রতিষ্ঠান আকওয়া ৩৬০০ মেগাওয়াট গ্যাস ভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণে বিনিয়োগ করবে ২ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। বৃহস্পতিবার ( ১৭ অক্টোবর) এজন্য একটি সমঝোতা সই করেছে আকওয়া ও পিডিবি।

বিদ্যুৎ ও জ্বালানি মন্ত্রণালয়ের হিসাবেই এই মুহূর্তে চাহিদার চেয়ে বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতা রয়েছে প্রায় দুই গুণ। অনেকেই সমালোচনা করছেন, এই অতিরিক্ত উৎপাদন ক্ষমতার কারণেই দিন দিন বাড়ছে বিদ্যুতের দাম।

এই প্রেক্ষাপটে বিদ্যুৎখাতে বেশ বড়ো বিনিয়োগ নিয়ে সমঝোতা সই করলো সৌদি আরব। তবে সাড়ে ৩ হাজার মেগাওয়াট গ্যাসভিত্তিক এই বিদ্যুৎ কেন্দ্রের জন্য এখনো কোন স্থান নির্ধারণ করা হয়নি।

প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি বিনিয়োগ-বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান বলেন, 'তিন হাজার ৬০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপনে দুই থেকে আড়াই বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করতে যাচ্ছে আকুয়া পাওয়ার। এই চুক্তির মাধ্যমে নতুন দিগন্ত উন্মোচিত হলো।'

তিনি বলেন, 'এনার্জি হচ্ছে অর্থনীতির চালিকা শক্তি। বাংলাদেশে অসাধারণ সাফল্য এসেছে এই খাতে। ভবিষ্যতের কথা মাথায় রেখেই বিদ্যুৎখাতে এই বিনিয়োগ। গত নভেম্বরে সৌদি আরব সফর করি, তখন সৌদি বাদশা বলেছিলেন বাংলাদেশে বিনিয়োগের জন্য পাবলিক ইনভেস্ট ফান্ড টিম পাঠাবেন। এক বছরের কম সময়ে তিনি তার কথা বাস্তবায়ন করেছেন।'

দেশে প্রায় ৩ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করা হয় ডিজেল ও ফার্নেসের মতো বেশি দামের জ্বালানি থেকে। ইতিমধ্যে এরকম কয়েকটি কেন্দ্র বন্ধ করেছে সরকার। পরিকল্পনা এ ধরণের কেন্দ্র পুরোপুরি বন্ধ হবে ২০২১ সালের মধ্যেই।

এরপরও চাহিদার চাইতে উৎপাদন ক্ষমতা থাকবে অনেক বেশি। যদিও সরকার মনে করে, ভবিষ্যতে চাহিদা যে হারে বাড়বে সেটি মাথায় রেখেই বাড়ানো হচ্ছে উৎপাদন ক্ষমতা।

অনুষ্ঠানে বিদ্যুৎ সচিব বলেন, অতিরিক্ত বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতা নিয়ে সমালোচনার কোনো কারণ নেই।

সৌদি আরবের জ্বালানি ও বিদ্যুৎ খাতের অন্যতম বড়ো প্রতিষ্ঠান আকওয়া'র প্রধান বলেন, এই সমঝোতার ফলে আরও এগিয়ে যাবে সৌদি-বাংলাদেশ সম্পর্ক।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

বিজনেস 24 খবর