channel 24

ব্রেকিং নিউজ

  • অবৈধ ক্যাসিনো ব্যবসা: রাজধানীর গুলশানে ঢাকা মহানগর...

  • দক্ষিণ যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদ ভূঁইয়া আটক...

  • মতিঝিলে ফকিরেরপুল ইয়ংমেনস ক্লাবে অভিযানে আটক ১৪২

জাপানি সুমিতোমো করপোরেশন বাংলাদেশে ২০ বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করবে

জাপানি সুমিতোমো করপোরেশন বাংলাদেশে ২০ বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করবে

অর্থনৈতিক অঞ্চল উন্নয়নে বিনিয়োগ করতে জাপানের সুমিতোমো করপোরেশনের সাথে চুক্তি করলো বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ-বেজা। এর ফলে আশা করা যাচ্ছে ২০ বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ আসতে পারে। যা কাজে লাগানো হবে নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে বিশেষায়িত জাপানী অর্থনৈতিক অঞ্চলের উন্নয়নে। এছাড়াও ভিন্ন শিল্প স্থাপন, জাপানী ও স্থানীয় বিনিয়োগ আকর্ষন এবং কর্মসংস্থান বাড়ানোর ক্ষেত্রে এই চুক্তি বড় ভূমিকা রাখবে বলে মনে করছে বেজা কর্তৃপক্ষ।

জাপানী কোম্পানি সুমিতোমো করপোরেশন। যারা বিনিয়োগ করবে বাংলাদেশে। এ লক্ষ্যে বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ, বেজার সাথে আনুষ্ঠানিকভাবে চুক্তি সই করল জাপানী এ প্রতিষ্ঠান। রোববার বিকেলে রাজধানীর হোটেল ইন্টারকন্টিনেন্টালে অনুষ্ঠানের অয়োজন করা হয়।

নারায়নগঞ্জের আড়াইহাজারে ১ হাজার একর জমির ওপর গড়ে উঠছে বিশেষায়িত জাপানী অর্থনৈতিক অঞ্চল। যেখানে বিনিয়োগ করবে সুমিতোমো করপোরেশন। জি-টু-জি'র আওতায় এটি প্রথম অর্থনৈতিক অঞ্চল। এরই মধ্যে ৫শ একর জমি অধিগ্রহণের কাজ শেষ হয়েছে বলে জানানো হয় অনুষ্ঠানে।

বাংলাদেশে জাপানের দূতাবাসের প্রতিনিধি তাকেশি ইতো বলেন, বাংলাদেশে বিনিয়োগের জন্য এই চুক্তি করতে পারাটা আমাদের জন্য একটা আনন্দের বিষয়। এরই মধ্যে জাপানের স্বনামধন্য বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান বিনিয়োগের জন্য আগ্রহ দেখিয়েছে। ভূমি উন্নয়নের কাজ শেষ হলে বিনিয়োগকারী প্রতিষ্ঠানগুলো চূড়ান্ত হবে। স্বাধীনতার সময় থেকেই জাপান বন্ধু হয়ে বাংলাদেশের পাশে ছিল এবং থাকবে।
 
প্রকল্পের মূল উদ্দেশ্য টেকসই উন্নয়ন, ভিন্ন শিল্প স্থাপন, জাপানী ও স্থানীয় বিনিয়োগ আকর্ষণ এবং কর্মসংস্থান বাড়ানো। বেজার প্রত্যাশা এ অর্থনৈতিক অঞ্চল চালু হলে সেখানে ২০ বিলিয়ন সমমূল্যের জাপানী বিনিয়োগ আনা সম্ভব।

প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব নজিবুর রহমান বলেন, এটি আমাদের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ একটি মুহূর্ত। এই অর্থনৈতিক অঞ্চল গড়ে তোলার মাধ্যমে বাংলাদেশের বিনিয়োগ পরিবেশ উন্নয়নে ব্র্যান্ড ইমেজ অনেক বেড়ে যাবে। এ ধরনের কার্যক্রমে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে সব ধরনের সহায়তা দেয়া হবে।

এসডিজি এর মুখ্য সমন্বায়ক আবুল কালাম আজাদ বলেন, খুব দ্রুতই কাজগুলো সম্পন্ন হবে। আমি জাপানী বন্ধুদের প্রতি আহ্বান জানাবো আপনারাও বিনিয়োগ করুন এবং দেরী না করে দ্রুত বিনিয়োগ করুন।

এই বিনিয়োগের ফলে দুই দেশের সম্পর্ক আরো দৃঢ় হবে বলে মন্তব্য করেন বেজার নির্বাহী চেয়ারম্যান পবপ্ন চৌধুরী। তিনি বলেন, এটি বিশাল কর্মযঞ্জের কেবল শুরু। আমি মনে করি এ উদ্যোগ জাপান এবং বাংলাদেশের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ককে আরো গভীর করবে।

অনুষ্ঠানে আরো জানানো হয়, ২০২২ সালের মধ্যে এই জাপানী অর্থনৈতিক অঞ্চল চালু করা সম্ভব।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

বিজনেস 24 খবর