channel 24

সর্বশেষ

  • করোনাভাইরাসের কারণে চীনে বন্ধ কাঁকড়া রপ্তানি; বিপাকে চাষী ও ব্যবসায়ীরা

  • আগামী মাস থেকে যুক্তরাষ্ট্রে রপ্তানি হবে বাংলাদেশে তৈরি স্মার্টফোন

  • হরিণের চামড়ার ওপর সৌম্য সরকারের বিয়ের আশীর্বাদ!

  • চট্টগ্রাম সিটিতে বিএনপির মেয়রপ্রার্থী ডা. শাহাদাত হোসেন

  • ভারতের কাছে হারলো বাংলাদেশ নারী দল

  • মধ্যপ্রাচ্যেও ছড়িয়েছে করোনাভাইরাস, ইরানে প্রাণ গেছে ১২ জনের

  • ট্রাক ড্রাইভারকে মারধর ও চাঁদাবাজির অভিযোগে ঢাবির ২ শিক্ষার্থী বহিষ্কার

  • দিল্লিতে নাগরিকত্ব আইন বিরোধী সহিংস বিক্ষোভ, পুলিশ সদস্য নিহত

  • চট্টগ্রামে বিদ্যুৎকেন্দ্র করার পরিকল্পনা আছে: রাশিয়ান রাষ্ট্রদূত

  • চট্টগ্রাম সিটিতে সবধরনের প্রচারণা সামগ্রী অপসারণের নির্দেশ

  • চট্টগ্রাম সিটিতে বিএনপির কাউন্সিলর পদে মনোনয়ন চূড়ান্ত

  • শারীরিক প্রতিবন্ধকতাকে দূরে ঠেলে স্বপ্নের দিকে এগিয়ে যাচ্ছেন কুড়িগ্রামের ফারজানা

  • সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষায় যাচ্ছে না ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

  • পাকিস্তানের সঙ্গে সর্ম্পক উন্নয়নে ভারতের প্রতি আহ্বান ট্রাম্পের

  • অসন্তোষ মা ও মামার, সামিরার দাবি সত্যের জয় হয়েছে

চীন-যুক্তরাষ্ট্র বাণিজ্য যুদ্ধে হুমকির মুখে বাইসাইকেল খাত

চীন-যুক্তরাষ্ট্র বাণিজ্য যুদ্ধে হুমকির মুখে বাইসাইকেল খাত

বেইজিং আর ওয়াশিংটনের বাণিজ্য যুদ্ধে ক্ষতির পরিমাণ নিয়ে চলছে হিসেব নিকেশ। প্রায় প্রতিটি রপ্তানী যোগ্য পণ্যের প্রতিষ্ঠানগুলো এখন হুমকির মুখে। তেমনই একটি খাত বাইসাইকেল। যুক্তরাষ্ট্রের এ শিল্পটি এখন ঘাটতি পুষিয়ে সামনে এগুতে পারবে কিনা তা নিয়ে তৈরী হয়েছে সংশয়।

যে কোন ধরণের যুদ্ধের ফলাফল কখনই সুখকর হয়না। সেটি প্রেমই হোক কিংবা বাণিজ্য। আঘাত সইতে হয় দুপক্ষকেই।

চীন-যুক্তরাষ্ট্রের বাণিজ্য যুদ্ধের আঘাতটাও যেন সে কথাই বলে। আমেরিকার ৯৪ ভাগ তৈরী করা বাইসাইকেল আর বাইসাইকেল তৈরী ৪০ শতাংশ কাঁচামাল চীন থেকে আসে। যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার বাইসাইকেল কোম্পানী অব আমেরিকা এ যুদ্ধের যেন দামামায় টিকে থাকা চেষ্টায় এক একাকী যোদ্ধা।

প্রতিষ্ঠানটির বছরে ৪ লাখ বাইসাইকেল উৎপাদন করে যার শতভাগ কাঁচামাল আসে চীন থেকে। তবে, অতিরিক্ত করের বোঝা প্রতিষ্ঠানটির উৎপাদন ব্যবস্থা ব্যহত করছে। সেই সাথে অন্য দেশের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সাথে টিকে থাকার লড়াইয়ে নিজেদের অবস্থান নড়বড়ে বলে স্বীকারই করলেন প্রতিষ্ঠানটির কর্তাব্যক্তিরা।

বাইসাইকেল কর্পোরেশন অব আমেরিকা, সিইও, আরনল্ড কামলার বলেন, তথাকথিত বাণিজ্য যুদ্ধের কারণে আমাদের উৎপাদন ২৮ লাখ থেকে কমে ২০ লাখ ইউনিট হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে এ সুযোগে অন্য প্রতিষ্ঠানগুলো জায়গা করে নেয়ার কাজ শুরু করেছে। যা ব্যবসা পরিচালনার জন্য নতুন ধরণের চ্যালেঞ্জ।

চীনের বাইসাইকের প্রতিষ্ঠানগুলোর দক্ষতা পুরণ হবে না বলেও জানায় ব্যবসায়ীরা। তাদের দাবি, যুক্তরাষ্ট্রের বাজার ব্যবস্থাপনার যে পদ্ধতিতে দুই দেশের ব্যবসায়ীরা এগুচ্ছিলেন তাতে একপ্রকার পারিবারিক সম্পর্ক তৈরীও হয়ে গিয়েছিলো, যা এখন ভেঙ্গে পড়েছে।

বাইসাইকেল কর্পোরেশন অব আমেরিকা সিইও আরনল্ড কামলার বলেন, সাংহাই থেকে আমাদের কাঁচামাল আসতো। সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানের সাথে আমাদের বহু বছরের সম্পর্ক। আমরা এ ছায়া যুদ্ধের বিরুদ্ধে। এতে, শুরু ব্যবসা নয়, বহুবছরের গড়ে উঠে সম্পর্কেও চীড় ধরছে।

এদিকে, সরবরাহকারীদের কাছ থেকে সময়মতো পণ্য না পেলে উৎপাদন ব্যহত হওয়ার পাশাপাশি চাকুরি নিয়ে সংশয় তৈরী হয়েছে কর্মচারীদের।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

বিজনেস 24 খবর