channel 24

সর্বশেষ

  • জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের ৭৩তম অধিবেশনে যোগ দিতে...

  • নিউইয়র্ক যাওয়ার পথে যাত্রাবিরতিতে লন্ডনে প্রধানমন্ত্রী

  • কক্সবাজারের উদ্দেশে সড়ক পথে আ.লীগের সাংগঠনিক সফর শুরু...

  • নির্বাচনে জনপ্রিয় ব্যক্তিদের মনোনয়ন দেয়া হবে: কুমিল্লায় সেতুমন্ত্রী

  • রেলপথের মতো সড়কপথের প্রচারণাতেও ব্যর্থ হবে আ.লীগ: রিজভী

  • ২০১৮'র শেষ অথবা ২০১৯'র শুরুতে জাতীয় নির্বাচন: সিইসি...

  • আইনগত ভিত্তি পেলেই ইভিএম ব্যবহার করা হবে

  • নরসিংদীতে ব্রহ্মপুত্র নদে নৌকাডুবি; ভাইবোনসহ ৩ জনের মৃত্যু

রপ্তানি বাড়াতে প্রযুক্তি ও প্রকৌশল পণ্যে গুরুত্বারোপ বিশ্লেষকদের

রপ্তানি বাড়াতে প্রযুক্তি ও প্রকৌশল পণ্যে গুরুত্বারোপ বিশ্লেষকদের

সময়ের সাথে সাথে বেড়েছে দেশের রপ্তানি আয়। সেই সাথে বেড়েছে রপ্তানি পণ্যের সংখ্যাও। তবে দু একটি খাত ছাড়া আর কোনটিই বড় আকারে রপ্তানি পণ্য হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হতে পারেনি। অর্থনীতিবিদ এবং ব্যবসায়িদের অভিমত উন্নত দেশে পরিণত হতে হলে শুধু একটি খাতের ওপর নির্ভরশীল থাকলে চলবেনা। বিলিয়ন ডলারের খাত হিসেবে রপ্তানি পণ্য তৈরীতে গুরুত্ব দিতে হবে ইলেকট্রনিক, হালকা প্রকৌশল পণ্য এবং আইটিসহ অন্যান্য প্রযুক্তি পণ্যের দিকেও।

২০০৯-১০ অর্থবছরে দেশের রপ্তানি আয় ছিল ১৬ বিলিয়ন ডলারের কিছু বেশি। বর্তমানে যেটি ছাড়িয়ে গেছে ৩৬ বিলিয়ন ডলার। সময়ের সাথে সাথে রপ্তানি আয় বেড়েছে ঠিকই, তবে বড়ো আকারে বাড়েনি রপ্তানি পণ্যের পরিসর। দেশের মোট রপ্তানি আয়ের ৮০ শতাংশেরও বেশি আসে তৈরী পোশাক খাত থেকেই। অর্থাৎ অন্যান্য পণ্য রপ্তানি হলেও মূলত একটি খাতের ওপর ভর করেই এগোচ্ছে দেশের রপ্তানি খাত।

অর্থনীতিবিদরা মনে করেন, বিশ্ববাজারে অন্য রপ্তানিকারক দেশের সাথে প্রতিযোগিতা করতে হলে ইলেকট্রনিক, হালকা প্রকৌশল পণ্য এবং আইটি ও প্রযুক্তি পণ্য রপ্তানিতে মনোযোগ দিতে হবে বাংলাদেশেকে।  
প্রায় একই অভিমত এফবিসিসিআই সভাপতিরও। তার মতে, বড় শিল্পের ছোট ছোট আধুনিক যন্ত্রাংশ তৈরীতে গুরুত্ব দিতে হবে বাংলাদেশকে। তবে তার আগে বাড়াতে হবে দক্ষতা।

রপ্তানি খাতকে আরো সমৃদ্ধ করতে চীন, জাপান এবং ভিয়েতনামের মডেল অনুসরণ করা যেতে পারে বলেও অভিমত ব্যবসায়ি এবং অর্থনীতিবিদদের।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

বিজনেস 24 খবর