channel 24

সর্বশেষ

  • বিশ্বকাপ স্কোয়াডে সুযোগ পেয়েও অবসরের ঘোষণা হেইলসের

  • বিশ্বকাপে বাংলাদেশ সেমিফাইনাল খেলবে: খালেদ মাহমুদ

  • ধর্ষণ মামলা: বাগেরহাটে মাদ্রাসার অধ্যক্ষসহ বিভিন্ন স্থানে গ্রেপ্তার ৯

  • ইংলিশ লিগ: শিরোপা জয়ের দিকে এগোচ্ছে ম্যান সিটি

  • 'মোদী' ওয়েব সিরিজ বন্ধের নির্দেশ নির্বাচন কমিশনের

  • বঙ্গমাতা গোল্ডকাপের জন্য বাংলাদেশ দল ঘোষণা

  • বঙ্গবন্ধুর ছবি অবমাননার অভিযোগে যবিপ্রবিতে ৮ ছাত্রলীগ কর্মী বহিষ্কার

  • চাকরির বয়স ৩৫ করার দাবিতে সাধারণ ছাত্র পরিষদের সমাবেশ

  • বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ: প্রথম পর্ব শেষে শীর্ষে বসুন্ধরা

  • নুসরাত হত্যায় আটক ইফতেখার রানা

  • মানুষ এখন কিছু হলেই মামলা করে: প্রধান বিচারপতি

  • ওয়াসার বিভিন্ন ক্ষেত্রে দুর্নীতির কথা স্বীকার করলেন এমডি

  • পোশাক খাতে অ্যাকর্ড অ্যালায়েন্সের প্রয়োজন নেই: রুবানা হক

  • যৌন হেনস্থায় অভিযুক্ত ভারতের প্রধান বিচারপতি

  • বীরশ্রেষ্ঠ আব্দুর রউফের শাহাদাৎবার্ষিকী পালিত

ভিয়েতনাম-বাংলাদেশ বাণিজ্যে ব্যবধান বাড়ছে

ভিয়েতনাম-বাংলাদেশ বাণিজ্যে ব্যবধান বাড়ছে

দিন দিন ব্যবধান বাড়ছে ভিয়েতনাম-বাংলাদেশ বাণিজ্যের। একসময় দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশটিতে বাংলাদেশের রপ্তানির পরিমাণ বেশি থাকলেও এখন আমদানির পরিমাণ ৬ গুণেরও বেশি। ব্যবসার সহজীকরণ, তথ্য-প্রযুক্তি, দক্ষতা ও উৎপাদনশীলতার প্রসারসহ নানা ক্ষেত্রে দ্রুত গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে দেশটি।

ফলে বিদেশী বিনিয়োগকারীরাও আগ্রহী হচ্ছেন সেখানে বিনিয়োগে। বিশ্লেষকদের অভিমত, বিনিয়োগ পরিবেশের উন্নয়নে গুরুত্ব দিতে হবে বাংলাদেশকেও। ১৯৪৫ সালে স্বাধীনতা ঘোষণা করলেও ১৯৭৫ সাল পর্যন্ত বিভিন্ন যুদ্ধে জড়িয়ে ছিল দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশ ভিয়েতনাম। তবে নিজেদের পরিবর্তন এবং অর্থনৈতিক অগ্রগতিতে এক সময়ের যুদ্ধবিদ্ধস্ত এই দেশ এখন অনেকের কাছেই রোল মডেল।

বিশ্ববাণিজ্যে ভিয়েতনামকে বাংলাদেশের অন্যতম প্রতিযোগী হিসেবে দেখা হলেও বিভিন্ন সূচকেই দ্রুত গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে দেশটি। জনসংখ্যা বাংলাদেশের প্রায় অর্ধেক হলেও রপ্তানি আয় বাংলাদেশের চেয়ে প্রায় পাঁচ গুণ বেশি। ব্যবসার সহজীকরণ, তথ্য-প্রযুক্তি, দক্ষতা ও উৎপাদনশীলতার প্রসারসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রেই ঈর্ষনীয় পরিবর্তন ভিয়েতনামের। ফলে স্বাভাবিকভাবেই বিদেশী বিনিয়োগকারীরা ছুটছেন সেখানে বিনিয়োগ করতে।

দিন দিন ভিয়েতনামের সাথে বাংলাদেশের বাণিজ্যের তফাতও বাড়ছে। ২০১৬-১৭ অর্থবছরের তথ্য অনুযায়ি দেশটিতে বাংলাদেশ রপ্তানি করেছে প্রায় সাড়ে ছয় কোটি ডলারের পণ্য। বিপরীতে আমদানি করেছে ৪১ কোটি ডলারের পণ্য। অথচ, একসময় সেখানে বাংলাদেশের রপ্তানির পরিমাণ আমদানির চেয়ে বেশি ছিল। অর্থনীতিবিদ এবং ব্যবসায়িদের অভিমত, বন্দরের সক্ষমতা বাড়ানো, পরিকল্পিত অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপন, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতের উন্নয়ন সহ অবকাঠামো উন্নয়নে গুরুত্ব দিতে হবে বাংলাদেশকে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

বিজনেস 24 খবর