channel 24

সর্বশেষ

  • চট্টগ্রামে চলছে চাকরি মেলা

  • নরসিংদীর বাঁশগাড়িতে আ.লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষে এক শিক্ষার্থীর মৃত্যু

  • নির্বাচনি ইশতেহারে স্বাস্থ্য খাতকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেয়ার আহবান

  • রাইড শেয়ারিং অ্যাপ উবারের ১০৭ কোটি ডলার লোকসান

  • মূলার বাম্পার ফলনের পরও লোকসানে লালমনিরহাটের চাষীরা

  • ইতিহাসের সাক্ষী হবার অপেক্ষায় নোয়াখালী শহীদ ভুলু স্টেডিয়াম

  • শীতকালীন সবজিতে ছেয়ে গেছে কাঁচাবাজার

  • নিপুণ রায়সহ ৭ জন পাঁচ দিনের রিমান্ডে

  • মিডিয়া কাপ ক্রিকেটে বাংলা ট্রিবিউন চ্যাম্পিয়ন

  • বকুলতলায় নাচে-গানে উদযাপিত হচ্ছে নবান্ন উৎসব

  • বর্ণময় জীবনের অধিকারী ছিলেন শিল্পী বারী সিদ্দিকী

  • সংখ্যালঘু নির্যাতনকারীদের মনোনয়ন না দেয়ার দাবি হিন্দু জোটের

  • সানরাইজার্সের হয়েই আইপিএল খেলবেন সাকিব

  • বরিশালের সঙ্গে ঝালকাঠিসহ ছয়টি রুটে বাস চলাচল বন্ধ

  • সৃষ্টির মাঝেও কাটছে না শূন্যতার রেশ

পোশাক শ্রমিকদের কর্মদক্ষতা বাড়াতে উদ্যোগী হয়ে উঠছেন ব্যবসায়ীরা

পোশাক শ্রমিকদের কর্মদক্ষতা বাড়াতে উদ্যোগী হয়ে উঠছেন ব্যবসায়ীরা

পোশাক শ্রমিকদের কর্মদক্ষতা বাড়াতে উদ্যোগী হয়ে উঠছেন ব্যবসায়ীরা। বহু প্রতিষ্ঠান খুলেছে আধুনিক প্রশিক্ষণ কেন্দ্র। ফলে, চাহিদা মাফিক পণ্য উৎপাদনে সক্ষম হয়ে উঠছেন লাখো শ্রমিক। এতে, লাভবান হচ্ছেন দুপক্ষই। বিজিএমইএ সভাপতি বলছেন, বিশ্ববাজারে টিকে থাকতে কর্মদক্ষতা বাড়ানোর বিকল্প নেই। আর সেটি করতেই নেয়া হচ্ছে নানামুখী উদ্যোগ। শ্রমিক নেতারা বলছেন, এজন্য সরকারকে আরো বেশি বিনিয়োগ করা উচিত।

জীবিকার টানে ১৭ বছর আগে ঢাকায় আসেন হালিমা খাতুন। মাসে ৭শ টাকা বেতনে সহকারী হিসেবে কাজ নেন ব্যাবিলন গ্রুপের একটি পোশাক কারখানায়। কিন্তু, আশ্চর্য হলেও সত্যি, বর্তমানে তারই নকশা করা বহু পোশাক রপ্তানি হচ্ছে বিশ্ববাজারে। কারণ, এই সময়ে তার দক্ষতা বেড়েছে নানাভাবে প্রশিক্ষণ নিয়ে। আর স্বীকৃতি হিসেবে মিলেছে, ২১গুণের বেশি বেতন বৃদ্ধি। যা স্বচ্ছলতা এনেছে টানাটানির সংসারে।

পোশাক খাত সংশ্লিষ্টদের মতে, বর্তমানে বহু কর্মী আসছেন, যারা মোটামুটি শিক্ষিত। ফলে, সম্ভব হচ্ছে, তাদেরকে কারিগরি প্রশিক্ষণ দিয়ে দক্ষ করে তোলা। একই সাথে, বিভিন্ন বিষয়ে সচেতন করা। আর এই কার্যক্রমই সহায়তা করছে, শ্রমিকদের উৎপাদনশীলতা বাড়াতে। যার অন্যতম বড় প্রমাণ ব্যাবিলনের এই কারখানা।

শ্রমিকদের দক্ষতা বাড়াতে তৎপর মালিকদের সংগঠন বিজিএমই। সংগঠনের সভাপতির মতে, এরই মধ্যে নেয়া হয়েছে বহু উদ্যোগ। যা বাস্তবায়নে কাজ করছে বেশিরভাগ কারখানা। তবে, শ্রমিক নেতাদের দাবি, নিরাপত্তা এবং দক্ষতা বাড়াতে সমানভাবে এগিয়ে আসতে হবে সরকারকে।

২০২১ সাল নাগাদ ৫০ বিলিয়ন ডলার রফতানি লক্ষ্যমাত্রা এই খাতের। যেজন্য বিকল্প নেই, শ্রমদক্ষতা এবং উৎপাদনশীলতা বাড়ানোর।

সর্বশেষ সংবাদ

বিজনেস 24 খবর